গুরু ডট কম কি?

গুরু ডট কম একটি প্রিলেন্সিং মার্কেটপ্লেস যেখানে আপনি আপনার সার্ভিস গুলা ক্লায়েন্ট এর কাজে সেল করে অর্থ উপার্জন করতে পারেন। এটিও ফাইবার, আপওয়ার্ক এর মতই একটি বিশ্বাসযোগ্য মার্কেটপ্লেস ।। পুরো বিশ্বে টপ ১০ টি মার্কেটপ্লেস এর মধ্যে গুরু একটি অন্যতম প্লাটফর্ম ।।
তারা তাদের প্ল্যাটফর্ম প্রিমিয়ার হওয়ার জন্য সর্বদা প্রচেষ্টা করে যাচ্ছে যেখানে পেশাদাররা ফ্রিলেন্সার, বায়ার এর কাজে সহযোগিতা করে তাদের কাজ সম্পন্ন করতে পারে । 1998 সাল থেকে, তারা এই আকাঙ্ক্ষাগুলিকে বাস্তবে রূপ দেওয়ার জন্য ভারতের পিটসবার্গ, পিএ এবং নোইডায় আমাদের অফিস থেকে অক্লান্ত পরিশ্রম করে যাচ্ছে। গুরু ব্যবহারকারীদের সাথে নিবিড় বন্ধন গড়ে তুলেছে এবং তাদের চাহিদা অনুযায়ী পরিবর্তিত হয়েছে, প্রয়োজনীয় সরঞ্জাম এবং সহায়তা দেওয়ার জন্য প্ল্যাটফর্মটি তৈরি করেছে ।

গুরু তে কেন কাজ করবেন?

গুরু এর তথ্য অনুযায়ী এখানে $250 মিলিয়ন+ এর লেনদেন সম্পন্ন হয়ে গেছে । যেখানে ইতিমধ্যেই ৮,০০০০+ ফ্রিলেন্সার তাদের সার্ভিস সেল করে যাচ্ছে ।। অন্যান্য মার্কেটপ্লেস এর ন্যায় তারাও দিচ্ছে সেইফ পে সুবিধা । যার ফলে আপনি সার্ভিস সেল করে ক্লায়েন্ট কে সন্তুষ্টি করার মাধ্যমে অর্থ উপার্জন করতে পারবেন ।। ক্লায়েন্ট অর্ডার কালেই কতৃপক্ষ তার কাছ থেকে টাকা জমা রেখে দিবে ।। এবং আপনি কাজ ভালো ভাবে করে যখন তা কমপ্লিট করবেন তখন উনারা আপনাকে সেই অর্থ দিয়ে দিবে ।। এখনে আপনি ফিক্সড প্রাইস , ঘন্টা ভিত্তিক , টাস্ক ভিত্তিক কাজ সেল দিতে পারবেন ।।

কি কি সার্ভিস সেল করা যাবে??

গুরু তে আপনি প্রোগ্রামিং , লিখালিখি, গ্রাফিক ডিজাইন , ডিজিটাল মার্কেটিং এমন প্রধান ক্যাটাগরি সহ ১৫০+ সাব ক্যাটাগরির বায়ার এর জন্য অফার করতে পারেন ।।এখানে কাজ করার জন্য প্রথম দিকে ফ্রি মেম্বারশিপ টাই যথেষ্ট মনে করি ।। ফ্রি মেম্বারশিপ এ আপনি প্রতি মাসে ১০ টি বায়ার রিকুয়েস্ট পাঠাতে পারবেন ।। এবং প্রতি টি সাকসেস কাজ এর জন্য মোট অর্ডার বাজেট এর ৯% ফি দিতে হবে তাদেরকে । যখন আপনি প্রি মেম্বারশিপ এ ভাল সেল করতে পারবেন তখন সেল আরও বাড়ানোর জন্য আপনি তাদের পেইড মেম্বারশিপ এ সাবস্ক্রিপশন করে নিতে পারেন।

পেইড মেম্বারশিপ এ গেলে কি কি সুবিধা পাওয়া যাবে ?

ফেইড মেম্বারশিপ এ গেলে আপনি অধিক সুযোগ সুবিধা পাবেন যেমন ৫০ টা করে বিট করতে পারবেন প্রতি মাসে ।।আপনার সেলস বোস্ট করতে পারবেন। অধিক ক্লায়েন্ট এর কাছে আপনার সার্ভিস সো করানো হবে যাতে করে অধিক সেল পাবেন। ক্লায়েন্ট কে ডিরেক্ট মেসেজ পাঠাতে পারবেন। কাজ কমপ্লিট করার পর তাদের কে ৯% এর কম ফি দিতে পারবেন ।। যদিও এইগুলা নির্ভর করবে আপনি তাদের কোন প্যাকেজ টা নিচ্ছেন তার উপর ।। তাছাড়াও আরও বিভিন্ন সুবিধা রয়েছে ।।

পেইড মেম্বারশিপ এর খরচ কেমন?

প্রতি মাসে $11.95 থেকে শুরু করে $49.95 পর্যন্ত মাসিক প্যাকেজ রয়েছে তাদের ।। তাছাড়া তাদের বার্ষিক প্যাকেজ ও রয়েছে ।।

অর্থ উত্তোলনের উপায় কি?

আপনি গুরু থেকে অর্জিত অর্থ পেপাল, পেওনিয়ার , ওয়্যার ট্রান্সফার এবং যেকোন ক্রেডিট কার্ড এর মাধ্যমে উত্তোলন করতে পারবেন ।।

গুরু ডট কম এ কিভাবে সেলিং শুরু করবো ?

গুরু ডট কম অন্যান্য মার্কেটপ্লেস এর ন্যায় আরেকটি পপুলার মার্কেটপ্লেস তাই নিয়ম এর ভিন্নতা নেই। তারপরও আপনারা যা করবেন তা হলো তাদের প্লাটফর্ম এ এসে ভেলিড তথ্য দিয়ে একটা ফিলেন্সার একাউন্ড খুলে নিবেন এবং আপনার ছবি ও স্কিল গুলা সুন্দর ভাবে সাজাবেন।। বিভিন্ন লিমিটেশন দূর করার জন্য আইডি কার্ড সাবমিট করে একাউন্ড ভেরিফাই করে নিবেন।। একাউন্ড এ সার্ভিস গুলা সুন্দর ভাবে সাজাবেন যেই গুলায় আপনি এক্সপার্ট ।। এবং একটিভ থাকার পাশাপাশি বেস্ট বায়ার রিকুয়েস্ট এ প্রপোজাল পাঠাবেন।।

ধন্যবাদ সবাইকে
লেখক
দিলোয়ার হোসেন
ডিজিটাল মার্কেটার এন্ড ওয়েব ডিজাইনার

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *